শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ০৮:১৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কুতুবদিয়ায় দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত ১ আহত ৬ শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদ কক্সবাজার জেলা শাখার পরিচিতি সভা সম্পন্ন ঈদগাঁওতে ফার্নিচার কারখানায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড -কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি মহেশখালীর মাতারবাড়ীতে ২ শিক্ষার্থীকে বলাৎকারের অভিযোগ, অভিযুক্ত শিক্ষক লাপাত্তা ট্যুরিস্ট পুলিশের অভিযানে ছিনতাইকারী সহ আটক-৮ জনপ্রিয়তায় শীর্ষে তালেব আস্থার প্রতীক টেলিফোন বলছেন উপজেলাবাসী উখিয়ার লাল পাহাড়ে র‍‍্যাবের অভিযানে আরসা’র প্রধান সহ আটক-২ ২১ বছর পর মায়ের মৃত্যুর ক্ষতিপূরণ অনাথ শিশুকে বুঝিয়ে দিলেন ইঞ্জিনিয়ার সহিদুজ্জামান! খুটাখালীতে বালু উত্তোলনকারী নাম বাদ দিয়ে নিরহ লোকের নামে অপপ্রচার ছোট মহেশখালী রাহাতজান পাড়া জামে মসজিদের মাইক চুরি

ডুলাহাজারার বগাইছড়ি খালে মাটি চাপা পড়ে বালু শ্রমিকের মৃত্যু

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৮ নভেম্বর, ২০২১
  • ২৫৬ বার পঠিত

চকরিয়া প্রতিনিধিঃ

কক্সবাজারের চকরিয়ায় অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের সময় মাটি চাপা পড়ে দুই মেয়ে সন্তানের জনক মোঃ আলী হেসেন (৩৬) নামের এক বালু শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার (৮ নভেম্বর) বিকেল ৫টার দিকে উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নস্হ বগাইছড়ি খালে অর্থাৎ রংমহল এলাকায় মর্মান্তিক এ র্দুঘটনা ঘটেছে। নিহত-আলী হোসেন(৩৬)অত্র ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের মাইজপাড়া গ্রামের শাহ আলমের মেয়ে সেলিনা আক্তারের স্বামী। তবে নিহতের নিজ বাড়ী হল,কক্সবাজার সদর উপজেলার খুরুশকূল ইউনিয়নের কুলিয়াপাড়ার বাসিন্দা বশির আহমদের পুত্র।
নিহতের স্ত্রী সেলিনা আক্তার জানান,আমার স্বামীসহ আমি কয়েক বছর ধরে আমার বাবার বাড়িতে থাকি।সেই থেকে প্রতিদিন বালু উত্তোলনের শ্রমিক হিসেবে আমাদের মহিলা মেম্বার নুর নেওয়াজের বালু পয়েন্ট লেবার হিসেবে কাজ করে।ঘটনার দিন বিকেলে বালু উত্তোলনের করতে গিয়ে হঠাৎ উপর থেকে মাটি ভেঙ্গে তার গায়ে পড়লে,সে মাটির নিচে চেপে যায়।পরে খবর পেয়ে তার সঙ্গে ঐকাজে জড়িত থাকা নাজু মিয়া,শাহেদুল ও মহিলা মেম্বারের ছেলে জমির সহ এলাকার আরো লোকজন ডেকে তাকে উদ্ধার করে।এরপর উদ্ধারকারীরা তাকে মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রীষ্টান হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।পরে তারা লাশ নিয়ে সোজা বাড়িতে চলে এসেছে। ঘটনার বিবরণ আপাতত এইটুকু বলে উদ্ধারকারীর মূখ থেকে শুনেছি।চাকরিয়া থানার এসআই আবু সায়েম আসছিল।তিনি লাশটি থানায় নিয়ে যায়। নিহতের শাশুড় বাড়ীতে গেলে স্হানীয় চেয়ারম্যান নুরুল আমিন ও মেম্বার ফরিদ সহ তদন্ত কর্মকর্তারা ঘটনা স্হলে পরিদর্শন করে এসেছেন বলে জানিয়েছেন থানার এ কর্মকর্তা। এবিষয়ে চকরিয়া থানার এসআই আবু সায়েম বলেন,মৃতদেহটি আমি থানায় নিয়ে এসেছি।যেহেতু নিহতের বাড়ি কক্সবাজার সদরের খুরুশকুলে।সে থাকে ডুলাহাজারা ইউনিয়নের তার শাশুড় বাড়িতে।তাই দুই অভিভাবকদের সাথে বসে ওসি স্যার সিদ্ধান্তটি নিবেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Bangla Webs